শুক্রবার-১২ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ-২৮শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ-৬ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি

সিলেটে বাংলাদেশ বৌদ্ধ যুব পরিষদ-সিলেট অঞ্চল’র শীতবস্ত্র ও মাস্ক বিতরণ

উৎফল বড়ুয়া, সিলেট প্রতিনিধি

বাংলাদেশ বৌদ্ধ যুব পরিষদ’র সারা বাংলাদেশে শীতবস্ত্র বিতরণের অংশ হিসেবে সিলেটে বাংলাদেশ বৌদ্ধ যুব পরিষদ সিলেট অঞ্চলর শীতবস্ত্র ও মাস্ক বিতরণ ১২ ফেব্রুয়ারি ২০২১ শুক্রবার বাংলাদেশ বৌদ্ধ যুব পরিষদ’র শীতবস্ত্র ও মাস্ক বিতরণ ১৯ তম কার্যক্রম এবার সিলেটে ঘাসিটুলা ও খাদিম চা বাগান এলাকায় বাংলাদেশ বৌদ্ধ যুব পরিষদ সিলেট অঞ্চলর সভাপতি উৎফল বড়ুয়ার সার্বিক তত্ত্বাবধানে অনুষ্ঠিত হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ বৌদ্ধ যুব পরিষদ (বাবৌযুপ) সিলেট অঞ্চল’র সহ সভাপতি শিমুল মুৎসুদ্দী,সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী রানা বড়ুয়া, সহ সাধারণ সম্পাদক সিকৃবি’র সহকারী অধ্যাপক স্বরূপ বড়ুয়া, দিলু বড়ুয়া, প্রকৌশলী সেতু বড়ুয়া, সাংগঠনিক সম্পাদক দেবু বড়ুয়া,সাংস্কৃতিক সম্পাদক সুমন বড়ুয়া, সহ সাংস্কৃতিক সম্পাদক শুক্লব বড়ুয়া প্রমুখ। এই মানবিক কাজের আনুষ্ঠানিক শুভ উদ্বোধন ঘোষনা করেন মানবতার ফেরিওয়ালা দৈনিক ইনফো বাংলার সিলেট বিভাগীয় প্রধান, সিলেট বৌদ্ধ সমিতির সাধারণ সম্পাদক, বাংলাদেশের বৌদ্ধ যুব পরিষদ সিলেট অঞ্চল’র সভাপতি আনুষ্ঠানিক শুভ উদ্বোধন ঘোষনা করেন উদ্বোধক উৎফল বড়ুয়া বলেন,শীতার্ত মানুষের জন্য লেপ-কম্বল ও শীতবস্ত্র যেমন দরকার তেমনি শৈত্যপ্রবাহ থেকে বাঁচার জন্য উপায়-উপকরণ দরকার। একই সঙ্গে দরকার খাদ্য। দেশের কয়েক কোটি মানুষ শীতের অসহায় শিকার। এদের সকলের লেপ-কম্বল, শীতবস্ত্র ও খাদ্য যোগান দেয়া সরকারের একার পক্ষে সম্ভব নয়। এ জন্য সর্বস্তরের মানুষ বিশেষ করে যাদের সামর্থ আছে তাদের এগিয়ে আসতে হবে। যথাসম্ভব সাহায্য-সহযোগিতা প্রদান করতে হবে। এটা শুধু অধিকতর সুবিধাপ্রাপ্ত ও সম্পন্ন মানুষ হিসাবে তাদের কর্তব্য নয়, ধর্মীয় অপরিহার্য দায়িত্বও বটে। দুস্থ ও অভাবীদের সাহায্য করা, তাদের প্রয়োজনে এগিয়ে আসা প্রতিটি মানুষের নৈতিক দায়। আমি মনে করি, শুধু রাষ্ট্রীয়ভাবে নয়, সমাজের বিত্তশালীদেরও এক্ষেত্রে এগিয়ে আসা জরুরি। বিশেষ করে আমাদের নজর দিতে হবে ছিন্নমূল খেটে খাওয়া মানুষ, শিশু ও বয়স্কদের প্রতি। মানুষ সৃষ্টির সেরা জীব। সমাজে সে মানুষেরই একটা অংশ গরিব-দুস্থ। তারা আমাদের সমাজের অবিচ্ছেদ্য অংশ। মানুষ হিসেবে বেঁচে থাকার ন্যূনতম মৌলিক অধিকারগুলো তাদেরও ন্যায্যপ্রাপ্য। তাই গরিব-অসহায়, দুস্থের প্রতি আন্তরিক ভালোবাসা প্রদর্শন ও সহানুভূতিশীল হওয়া অত্যাবশ্যক। আসুন আমরা মানবিক মূল্যবোধ থেকে সবাই মিলে অসহায় ছিন্নমূল মানুষের পাশে সামর্থের ভিত্তিতে সহযোগিতার হাত প্রসারিত করি।

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email
Share on telegram
Telegram
Share on skype
Skype