রবিবার-২১শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ-৮ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ-১২ই শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি

উত্তর কাট্টলীতে অসহায়দের মাঝে রান্না করা খাদ্য বিতরণকালে সিটি মেয়র

এমডি নিজাম উদ্দীন *
চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আ.জ.ম নাছির উদ্দীন বলেছেন, করোনায় বিপর্যস্ত বিশ্বমানবতা। কোভিড-১৯ মহামারী আক্রান্ত পৃথিবীতে দাঁড়িয়ে প্রত্যেকের বিবেককে মানবতা ও সামাজিকতায় জাগিয়ে তুলতে হবে। বাংলাদেশের মত ঘনজনবসতি দেশে সামাজিকতা, বিবেক, নৈতিকতা বিবর্জিত মনোবৃত্তি আমাদেরকে তাড়িত করছে আত্মকেন্দ্রিকতার দিকে।অথচ কোন মানবিকতা, সামাজিকতা, ধার্মিকতা ও সহমর্মিতা আমাদেরকে প্রভাবিত ও তাড়িত করছে না । আমাদের বোধ বিবেকের মহামারীকে এ সময়ে নিয়ন্ত্রন এবং অসৎ মানসিকতা প্রতিরোধ করা দরকার। বিবেক যদি আমাদের পরিচালক না হয় তবে করোনা ভাইরাস থেকে বেঁচে থেকে বিবেকহীন মানুষ হয়ে আমরা যে জীবনের দিকে যাব তাকে জীবন বলে ভাবার কথা অর্থহীন। আসুন আমরা বিবেককে জাগিয়ে সামাজিকতার উপর কোন চাপ সৃষ্টি না করে পরস্পরের সহমর্মী হয়ে সমষ্টির স্বার্থ বিবেচনায় এনে এ সংকটকে মোকাবেলা এবং উত্তরণের পথে নিজেদের নিয়োজিত করি।সর্বোপরি মনুষ্যত্বকে জাগ্রত করে নিজেকে বিকশিত করি । তিনি আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে লকডাউনকৃত ১০নং উত্তর কাট্টলী ওয়ার্ডে অসহায় জনগণের মাঝে রান্না করা খাদ্য বিতরণকালে এসব কথা বলেন। মেয়র আরো বলেন, বিশ্বের সব দেশেই জীবন সংহারি এই ভাইরাস প্রতিহত করতে চেষ্টা করে ব্যর্থ হচ্ছে। আমাদের বাংলাদেশেও ভাইরাসটি প্রতিহত করতে সরকারের পক্ষ থেকে নানান পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। করোনা মোকাবেলায় ব্যক্তিগত সাবধানতার কোন বিকল্প নেই। শারীরিক দূরত্ব বজায় রেখে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চললে করোনার ছোবল থেকে বাঁচা অনেকটা সহজ। এ ব্যাপারে সামাজিক প্রতিরোধ গড়ে তুলতে পারলে সংক্রমণ ও মৃত্যুর হার কাংখিত পরিমানে কমিয়ে আনা সম্ভব। এ সময় চসিক প্যানেল মেয়র ও কাউন্সিলর ড. নিছার উদ্দিন আহমেদ মঞ্জু, সংরক্ষিত ওয়ার্ড কাউন্সিলর আবিদা আজাদ, মেয়রের একান্ত সচিব আবুল হাশেম, আকবরশাহ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোস্তাফিজুর রহমান, আকবরশাহ থানা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি লোকমান আলী, আহবায়ক মো. ইকবাল হোসেন, প্রচার সম্পাদক আবু সুফিয়ান উপস্থিত ছিলেন।
Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email
Share on telegram
Telegram
Share on skype
Skype