রবিবার-২১শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ-৮ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ-১২ই শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি

সারাদিন ব্যাপি বিভিন্ন অনুষ্ঠানের মাধ্যমে চট্টগ্রাম কলেজে শোক দিবস পালন ।

আজ শোকাবহ ১৫ আগস্ট। জাতীয় শোক দিবস। বাঙালি জাতির শোকের দিন। ১৯৭৫ সালের এই দিনে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়েছিল। বঙ্গবন্ধুর ৪৫তম শাহাদতবার্ষিকীর এই দিনটি শ্রদ্ধা-ভালোবাসাসহ নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে পালন করছে দেশবাসী। এরই ধারাবাহিকতায় দিনব্যাপী নানান আয়োজনের মধ্য দিয়ে যথাযোগ্য মর্যাদায় শোক দিবস পালন করেছে চট্টগ্রাম কলেজ ছাত্রলীগ।

সূর্যোদয়ের সাথে সাথে কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি মাহমুদুল করিম এবং সাধারণ সম্পাদক সুভাষ মল্লিক সবুজ এর নেতৃত্বে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখার মাধ্যমে শোক দিবসের কর্মসুচি শুরু হয়। এরপর কলেজ মসজিদে খতমে কোরআন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুষ্পঅর্পণ ও গরিব- দুস্থদের মাঝে খাবার বিতরণ করা হয়েছে।

খাবার বিতরণ পর্বে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর এম মুজিবুল হক চৌধুরী, উপাধ্যক্ষ প্রফেসর মুজাহিদুল ইসলাম চৌধুরী ও বিভাগীয় প্রধানগণ।

বঙ্গবন্ধুকে শ্রদ্ধার সহিত স্মরণ করে কলেজ অধ্যক্ষ মুজিবুল হক চৌধুরী বলেন, বঙ্গবন্ধু মানেই বাংলাদেশ, বাংলাদেশ মানেই বঙ্গবন্ধু। এটা আর কারো অজানা নয়। আমরা শোক দিবস পালন করছি সেটা যেমন বড় কথা, তার চেয়ে বড় কথা হচ্ছে বঙ্গবন্ধুর দর্শন ও আদর্শ মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়ন করা।’ অসাম্প্রদায়িক চেতনায় জাতির জনকের স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ে তোলার জন্য সবার প্রতি আহ্বান রইল।

পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ শেষে ১৫ আগস্ট উপলক্ষে কলেজ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সুভাষ মল্লিক সবুজ তার বক্তব্যের শুরুতে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু, বঙ্গমাতা এবং ১৯৭৫ এর ১৫ আগস্টের সেই কালরাত্রিতে স্বাধীনতাবিরোধী অপশক্তির হাতে নৃশংসভাবে নিহত বঙ্গবন্ধু পরিবারের সদস্য এবং জাতীয় চার নেতাসহ মুক্তিযুদ্ধের সব শহীদদের আত্মার শান্তি কামনা করেন।

তিনি বলেন, ঘাতকচক্র বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করলেও তাঁর স্বপ্ন ও আদর্শের মৃত্যু ঘটাতে পারেনি। আসুন, আমরা জাতির পিতা হারানোর শোককে শক্তিতে পরিণত করি। একই সাথে বঙ্গবন্ধুর বিখ্যাত উক্তি ‘বাংলার মানুষের প্রতি ভালোবাসাই আমার সবচেয়ে বড় শক্তি, আর আমার সবচেয়ে বড় দুর্বলতাও এটা যে আমি তাদের অনেক বেশি ভালোবাসি’ উল্লেখ করেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন কলেজ ছাত্রলীগ নেতা জিয়াউদ্দীন আরমান, মনির রিহান, মামুন সিকদার, আবদুল্লাহ আল সাইমুন, জামশেদ উদ্দিন, মোহাম্মদ আনসার উদ্দীন,মোহাম্মদ ফয়সাল, এনামুল হক, ইমাম হোসেন, আবদুল্লাহ আল নোমান,শামীম নেওয়াজ, রিয়াজুল ইসলাম শান্ত, আজিজুল হাকিম মাসুম, মোস্তফা তারেক, শহীদুল ইসলাম, কায়েস মাহমুদ, আসাদ মাহমুদ শহীদ, সৈয়দ নাঈম, জোবায়েরুল ইসলাম, মুবিনুল হক সাব্বির, জিব্রানুল ইসলাম রুমি প্রমুখ।

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email
Share on telegram
Telegram
Share on skype
Skype